জাহিদের হ্যাটট্রিকে সেমিফাইনালে চট্টগ্রাম আবাহনী

স্পোর্টস ডেস্ক: শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ফুটবলে সেমিফাইনালের সম্ভাবনা টিকিয়ে রাখতে আয়োজকদের প্রথম টার্গেট ছিলো জয়। সেই জয়ের ব্যবধানটা ২ গোলের হলে সেমিফাইনাল চূড়ান্ত হবে চট্টগ্রাম আবাহনীর। এমন সমীকরনে গ্রুপে নিজেদের শেষ ম্যাচে জাহিদের হ্যাটট্রিকে করাচি ইলেকট্রিক এফসিকে ৪-২ গোলে হারিয়ে শেষ চার নিশ্চিত করলো আয়োজকরা। একটু পরে ইস্ট বেঙ্গল ও ঢাকা আবাহনীর ম্যাচ থেকেই চূড়ান্ত হবে বি গ্রুপের অপর সেমিফাইনালিষ্ট। ওই ম্যাচে ইস্ট বেঙ্গলকে ২ গোলে ব্যবধানে হারাতে পারলে সেমিফাইনাল খেলবে ঢাকা আবাহনী।

বিকেলে ম্যাচের 10 মিনিটে এমিলির থ্রো ইন আয়ত্ত্ব নিয়ে এলিটা কিংসলে বাম প্রান্ত থেকে ক্রস করেন। আনমার্কড জাহিদ বক্সের ডান প্রান্ত থেকে শট নেন। করাচি ইলেকট্রিকের একজন ডিফেন্ডারের পায়ে লেগে বল জালে জড়ায়। তিন মিনিট পর এবার গোলের যোগানদাতা জাহিদ। মাঝমাঠ থেকে তার থ্রু পাস নিয়ে নিজের মার্কারকে কাটিয়ে বা পায়ের প্লেসিং শটে দলের দ্বিতীয় গোলটি করেন নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড এলিটা কিংসলে।

২৬ মিনিটে ব্যবধান কমায় করাচি ইলেকট্রিসিটি। হায়াতুল্লাহর মাপা ক্রসে মোহম্মদ রসুলের হাল্কা ছোয়ার হেড পরাস্ত করে এগিয়ে আসা রাসেল মাহমুদ লিটনকে। ৩৪ মিনিটে আবারো আবাহনীর অগ্রগামিতা দুইয়ে নিয়ে যান জাহিদ হোসেন (৩-১)। বক্সের ডান প্রান্ত থেকে এলিটা কিংসলের ফ্রিকিক ঠিক মতো ফিস্ট করতে পারেননি গোলরক্ষক গুলাম নবী। ডিফেন্ডার ও গোলরক্ষকের ভুল বোঝাবুঝিতে প্লেসিংয়ে বল জালে প্রবেশ করেন জাহিদ। আবারো দলকে ফিরিয়ে আনে মুহম্মদ রাসুল। প্রথমার্ধ শেষ হওয়ার ২ মিনিট আগে নাইজেরিয়ান ডিফেন্ডার ইউসুফ ইসা মুহম্মদ রসুলকে ফাউল করলে পেনাল্টি পায় করাচি ইলেকট্রিক। পেনাল্টি থেকে ব্যবধান ৩-২ করেন রসুল নিজেই।

৬৬ মিনিটে ১০ জনে পরিণত হয় চট্টগ্রাম আবাহনী। ইউসুফ ইসা দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন। ৮১ মিনিটে রেজাউল করিম রেজা জাহিদ হোসেনের কর্নার হেড করতে গিয়ে অবৈধ ফাউলের শিকার হলে সৌদি আরবের রেফারি আব্দুল্লাহ তুর্কি রেফারি দেন। পেনাল্টি থেকে দলের জয় ও হ্যাটট্রিক নিশ্চিত করেন।

Print
1242 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About Jessore Express

Close