খুলনায় গাড়িতে গুলি চালিয়ে ‘সন্ত্রাসীকে’ হত্যা

যশোর এক্সপ্রেস ডেস্ক: খুলনার দৌলতপুরে শহিদুল ইসলাম (৪২) ওরফে হুজি শহীদকে গুলি করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে দৌলতপুর খান এ সবুর রোডে ইসলামী ব্যাংকের সামনে গাড়ি থামিয়ে তাকে গুলি করা হয়। এ ঘটনায় দৌলতপুর এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শহীদ প্রাইভেট কারযোগে পাবলা চুন্নুর বটতলা এলাকায় নিজ বাড়ির দিকে যাচ্ছিলেন। এ সময় বিপরীত দিক থেকে একটি মাইক্রোবাস কারটির গতি রোধ করে। কিছু বুঝে উঠার আগেই মাইক্রোবাসে থাকা সন্ত্রাসীরা নেমে তাকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়। শরীরের পিছন দিক থেকে গুলি ঢুকে তার ফুসফুস ভেদ করে চলে যায়। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে প্রথমে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও পরে গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে কর্তব্যরত ডাক্তাররা তাকে সন্ধ্যায় মৃত ঘোষণা করেন। মৃতদেহ খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।
Khulna-Shahid-killed-02
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, নিহত হুজি শহীদ খুলনার দৌলতপুর এলাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী হিসেবে তালিকাভুক্ত ছিলেন। তার বিরুদ্ধে কেসিসির কর্মচারী আকুঞ্জি মাসুদ আলম, মাই টিভির খুলনা প্রতিনিধিকে গুলি করে হত্যাসহ অনেকগুলো মামলা রয়েছে। দীর্ঘ দিন জেল খাটার পর কিছুদিন আগে তিনি জামিনে ছাড়া পান। এরপর কিছুদিন তিনি আত্মগোপনে ছিলেন। সম্প্রতি তিনি এলাকায় যাতায়াত শুরু করেন। আওয়ামী লীগের কর্মী পরিচয়ে তিনি খান ব্রাদার্সে শ্রমিক সাপ্লাইয়ের ঠিকাদারি করতেন। দৌলতপুর এলাকার সংসদ সদস্য মন্নুজান সুফিয়ানের সঙ্গে তার সুসম্পর্ক ছিল।

অপরদিকে শহীদ নিহত হবার খবরে দৌলতপুর এলাকায় তার অনুসারীরা গাড়ি ভাংচুরের চেষ্টা করলে পুলিশ হস্তক্ষেপ করে। বর্তমানে ওই এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত পুলিশ ঘটনায় জড়িত কাউকে আটক করতে পারেনি। শহীদকে কারা কী কারণে খুন করেছে, সে বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশের কোনো কর্মকর্তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি। দায়িত্বশীল পুলিশ কর্মকর্তারা কেউ ফোন রিসিভ করছেন না।

Print
1105 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About Jessore Express

Close