সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে রোবট ‘সেনা’র উন্মোচন করল চীন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চীন নতুন কয়েকটি রোবট ‘সেনা’র উন্মোচন করেছে। এ সব রোবট সেনাকে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ব্যবহারের করা যাবে। বেইজিং’এ চলতি সপ্তাহের ২০১৫ রোবট সম্মেলনে এ সব রোবট সেনার উন্মোচন করা হয়। এ সবের মধ্যে রয়েছে খেলনা আকারের একটি রোবট সেনা। রাইফেল এবং গ্রেনেড লাঞ্চার বহনকারী এটিকে যুদ্ধের ফ্রন্ট লাইনে নামানো যাবে। চীন নতুন যে তিনটি রোবট সেনা উন্মোচন করেছে এটি তার অন্যতম। চীনের রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা শিনহুয়া এ খবর দিয়েছে।

এতে বলা হয়, এ সব রোবট সেনা যুদ্ধক্ষেত্রে নিজেদের মধ্যে যোগাযোগ রক্ষা করে চলতে পারে। এ সব রোবট সেনার একটিকে নজরদারির কাজে নিয়োগ করা সম্ভব হবে। এটি বিষাক্ত গ্যাস, ক্ষতিকারক রাসায়নিক উপাদান বা বিস্ফোরক শনাক্ত করতে পারবে। এ ছাড়া, নজরদারি চালিয়ে পাওয়া এ সব তথ্য ফ্রন্ট লাইনের সেনাদেরকেও জানিয়ে দিতে পারবে। নজরদারি চালানোর সময়ে কোনো ভুল হলে পরিস্থিতি সামাল দেয়ার জন্য পাঠানো হবে অর্ডন্যান্স ডিসপোজাল বা ইওডি নামের রোবট সেনাকে। ইওডি’র ওজন ১২ কেজি এবং ব্যাকপ্যাক বহন করতে পারে এটি। কোনো সেনা যখন একক অভিযান বা সোলো মিশনে যাবে তাকে সহায়তার জন্য তৈরি করা হয়েছে একে।

পরিস্থিতি যদি বিপদজনক দিকে মোড় নেয় তাহলে হামলার কাছে ব্যবহৃত রোবট সেনা বা অ্যাটাক রোবটকে নামানো হবে। হালকা অস্ত্র, রাইফেল এবং গ্রেনেড সজ্জিত এ রোবট সেনা বিপজ্জনক পরিস্থিতি সামাল দিবে। দুরবিন দিয়ে পরিস্থিতির ওপর নজর রাখবে এবং দূর থেকে লক্ষ্যবস্তুতে হামলা করতে পারবে এ রোবট সেনা। এই তিন রোবট সেনার দাম পড়বে দুই লাখ ৩৫ হাজার ছয়শ’ ডলার

Print
269 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About Jessore Express

Close