প্রতিমন্ত্রী পলকসহ ২১ জনকে হত্যার হুমকি

যশোর এক্সপ্রেস ডেস্ক: তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহম্মেদ পলক, নাটোরের ৩ সংসদ সদস্য, রাজনীতিক, সাংবাদিকসহ ২১ জনকে হত্যার হুমকি দিয়ে নাটোর প্রেসক্লাবে চিঠি দিয়েছে আনসারুল্লাহ বাংলা টিম-১১ নামের একটি জঙ্গি সংগঠন।ডাক যোগে পাঠানো চিঠিটি বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নাটোর প্রেসক্লাবে পৌঁছে। চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, আনসারুল্লাহ বাংলা টিম-১১ রাজশাহী বিভাগের নাটোর জেলায় প্রথম আঘাত হানবে। আর আঘাতের প্রথমেই যাদের নিশ্চিহ্ন করা হবে তাদের একটি প্রাথমিক তালিকা দেয়া হল। পরবর্তীতে আরো একটি নামের তালিকা দেয়া হবে বলেও চিঠিতে উল্লেখ করা হয়।

চিঠিতে যাদের প্রাণনাশের হুমকি দেয়া হয়েছে তারা হলেন- তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, সদর আসনের সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুল, নাটোর-১ আসনের সংসদ সদস্য আবুল কালাম আজাদ, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোর্ত্তুজা, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মালেক শেখ, নাটোর জজ কোর্টের পিপি অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম, নাটোর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক দুলাল সরকার, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রাকিবুল ইসলাম জেমস, এমপি শফিকুল ইসলাম শিমুলের এপিএস আকরামুল ইসলাম, বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামী যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও এমপি আব্দুল কুদ্দুসের মেয়ে কুহেলী কুদ্দুস মুক্তি, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আব্দুল্লাহ আল সাকিব বাকি, সাধারণ সম্পাদক শফিউল আযম স্বপন, নলডাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক এসএম ফিরোজ, আওয়ামী লীগ নেতা শহিদুল ইসলাম বকুল, এইচ এম জাকির, আর্জু শেখ, আসাদ, ফেরদৌস, ভোলা, বুলবুল। পরবর্তীতে আরো একটি নামের তালিকা দেয়া হবে বলেও চিঠিতে উল্লেখ করা হয়।

Ansarulla-Bangla-tem-120160121085706চিঠিতে বলা হয় ,পশ্চিমা বিশ্বে ইহুদি নাসারাদের ইসলাম বিরোধী ঘৃণ্য চক্রান্তের সঙ্গে আজ যুক্ত হয়েছে উপমহাদেশের হিন্দু কাফের মুরতাদ চক্র। যার প্রত্যক্ষ ফসল জালেম, কাফের আওয়ামী লীগের বাংলার মসনদে অধিষ্ঠান। কাল্পনিক যুদ্ধাপরাধীদের বিচার, জঙ্গি দমনসহ নানা অজুহাতে দ্বিনী মুজাহিদদের দমন ও ধ্বংস করাই তাদের প্রধান কর্ম। এই বেদ্বীন ও কুফরকে সহযোগিতার জন্য তৈরি করা হয়েছে একদল তান্ত্রিক, এরাই মূলত আধুনিকতা ও বিজ্ঞান চিন্তার নামে বিভ্রান্ত করছে নতুন প্রজন্মকে। ধর্মের মিথ্যা ও ভুল ব্যাখ্যার মাধ্যমে কৌশলে তাদের মনে জন্ম দিচ্ছে ইসলাম বিরোধী ধারণা। এই তথাকথিত বুদ্ধিজীবী , সংষ্কৃতি ব্যক্তিত্ব ,ব্লগার, বাম ও মুক্তিযুদ্ধ চেতনা ব্যবসায়ীরাই আজ ইসলামের প্রধান দুশমন।

এদের সম্পর্কে পাক কোরআনে স্পষ্ট বলা আছে “তারা চায় যে, তারা যেমন, তোমরাও তেমনি কাফের হয়ে যাও, সব সমান হয়ে যাও। তাদের বন্ধুত্বকে গ্রহণ করো না যে পর্যন্ত না তারা আল্লাহর পথে আসে। অতঃপর তারা যদি বিমুখ হয় তবে তাদের যেখানে পাবে হত্যা কর। এই কাফেরদের যোগসাজসে নিষিদ্ধ করা হয়েছে অনেক ধর্মীয় সংগঠন। সম্প্রতি নিষিদ্ধ করা হয়েছে আনসারুল্লাহ বাংলা টিমকে। কিন্তু ইসলামী জিহাদী আদর্শে বলিয়ান এই টিমকে কোনো নশ্বর মানবসৃষ্ট সরকারের আদেশের পরোয়া করে না।

নাটোর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক দুলাল সরকার বলেন, বৃহস্পতিবার সকালে হলুদ খামে ডাকযোগে একটি চিঠি আসে। চিঠিটি খোলার পর আনসারুল্লাহ বাংলা টিম-১১ নামের একটি সংগঠন নাটোরের মন্ত্রী, সংসদ সদস্যসহ মোট ২১ জনের নাম উল্লেখ করে একটি চিঠি দেয়। দুলাল সরকার আরও বলেন, প্রাথমিকভাবে বিষয়টি পুলিশের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। এ বিষয়ে সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করা হবে। এ বিষয়ে জুনাইদ আহম্মেদ পলক বলেন, জঙ্গি সংগঠনের হুমকি হালকাভাবে নেওয়ার কিছুই নেই। আইন-শৃংখলা প্রয়োগকারী সংস্থাকে বিষয়টি জানানো হয়েছে। নাটোর-১ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ বলেন, এই ধরনের কোন চিঠি এখন পাইনি। এটা প্রচারের জন্য হয়তো জঙ্গি সংগঠন এ কাজ করতে পারে।

Print
985 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About admin

Close