যশোরে ‘লতিফ রাজাকার’ আটক

 এক্সপ্রেস ডেস্ক: ১৯৭১ সালের মানবতাবিরোধী অপরাধে জড়িত থাকার অভিযোগে আব্দুল লতিফ ওরফে লতিফ রাজাকার (৬২) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার গভীররাতে যশোর সদরের আবাদকচুয়া সাতঘর গ্রাম থেকে তাকে আটক করা হয়। আটক লতিফ ওই গ্রামের মৃত শামছুল হকের ছেলে।

কোতোয়ালি থানার ওসি (তদন্ত) শ্যামলাল নাথ জানান, আটক লতিফ ১৯৭১ সালের মানবতাবিরোধী অপরাধের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তিনি স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় আবাদকচুয়া গ্রামের রাজাকার কমান্ডার মওলানা আব্দুল মালেক মোড়লের হাত ধরে যশোরে রাজাকারদের আস্তানা আনসার ক্যাম্পে নিজের নাম লেখান। ওই সময় পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী দিয়ে তিনি দেশের বহু লোককে হত্যা করিয়েছিলেন। এছাড়া ধর্ষণ, লুটপাট, বসতবাড়িতে অগ্নিসংযোগসহ মুক্তিযোদ্ধাদের গোপন খবর আদান প্রদানের সঙ্গে তিনি জড়িত ছিলেন। এসব কারণে এলাকাবাসী এখনও তাকে লতিফ রাজাকার হিসেবেই ডাকে। আটক লতিফ জানান, তিনি রাজাকার ছিলেন না। তবে রাজাকার কমান্ডার মওলানা আব্দুল মালেক  মোড়লের সঙ্গে আনসার ক্যাম্পে রাজাকারদের ক্যাম্পে নাম লেখাতে গিয়েছিলেন। সে সময় তার বয়স কম থাকায় রাজাকাররা তার নাম তালিকাভুক্ত করেনি।
Print
3611 মোট পাঠক সংখ্যা 9 আজকের পাঠক সংখ্যা

About jexpress

https://t.me/pump_upp
Close