সুইসাইড নোট লিখে ঠিকাদারের আত্মহত্যা

এক্সপ্রেস ডেস্ক: মৃত্যুর কারণ দেয়ালে লিখে আত্মহত্যা করেছে ঝিনাইদহ শহরের কাঞ্চনপুরের সিরাজুল ইসলাম মুন্সির ছেলে সোলায়মান হোসেন বিপ্লব। বৃহস্পতিবার দুপুর ২টার দিকে শহরের হামদহ কালীমন্দিরের সামনে নিজ অফিস থেকে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। সুইসাইড নোটে লেখা ছিল-‘আমার মৃত্যুর জন্য দায়ী আবু তালেব, প্রোঃ ইমন এন্টারপ্রাইজ, কুটুম কমিউনিটি সেন্টারের মালিক এবং মনি (আজিজ ডা. ছেলে)। আমি তালেবের লাইসেন্সে যশোর মুক্তিযোদ্ধাদের বাড়ি তৈরির কাজ করি। তাদের নিজ স্বাক্ষর করা খরচ বাদ দিয়ে আমার পাওনা বুঝিয়ে দেয়ার জন্য বারবার তাদের দুয়ারে ধরনা দেই। কিন্তু একটা বিল থেকে আমাকে কোনো টাকা দেয়নি বরং তালেব মনিকে দিয়ে আমাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয় এই বলে যে, ‘তোর লাশও খুঁজে পাওয়া যাবে না…।’ ঝিনাইদহ সদর থানার ওসি হাসান হাফিজুর রহমান জানান, দুপুরে এলাকাবাসীর কাছ থেকে খবর পেয়ে বিপ্লবের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঝিনাইদহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজবাহার আলী শেখ জানান, ঠিকাদারি কাজের টাকা-পয়সা লেনদেন সংক্রান্ত বিষয়ে হতাশ হয়ে বিপ্লব আত্মহত্যা করেছে। এর জন্য কে দায়ী অফিসের দেয়ালে কালী দিয়ে লিখে তাও সে উল্লেখ করে গেছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Print
1357 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About Jessore Express

Close