ফোল্ডার পড়েন না মন্ত্রীরা, প্রধানমন্ত্রীর অসন্তোষ

এক্সপ্রেস ডেস্ক: মন্ত্রিসভার আইন, নীতিমালা, চুক্তির খসড়ার ফোল্ডার মন্ত্রীরা পড়েন না বলে অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী এ অসেন্তোষ প্রকাশ করেন। সচিবালয়ে সোমবার প্রধানমন্ত্রীর সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে উপস্থিত এক প্রতিমন্ত্রী এ তথ্য জানান। তবে ওই প্রতিমন্ত্রী নাম প্রকাশ করতে চাননি। নিয়ম অনুযায়ী মন্ত্রিসভার বৈঠকে অনুমোদনের আগে আইন, নীতিমালা, চুক্তির খসড়ার ফোল্ডার ব্রিফকেসবন্দি করে মন্ত্রিসভার সদস্যদের কাছে পাঠানো হয়। সেই আইন, নীতিমালা, চুক্তির খসড়া মন্ত্রিসভা বৈঠকে উপস্থাপন করা হলে মন্ত্রীদের আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে তা অনুমোদিত হয়। এ সময় তা সংশোধন, পরিবর্ধন, বিয়োজন হয়ে থাকে।

মন্ত্রিসভায় উপস্থিত ওই প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘সোমবার বৈঠকে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয় থেকে বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশন আইনের খসড়া উপস্থাপন করা হয়। প্রধানমন্ত্রী আইনটি আরও পর্যালোচনা করে পুনরায় উপস্থাপন করার কথা বলেন। একজন সদস্য কোনো মন্ত্রীর নেতৃত্বে এ বিষয়ে একটি কমিটি গঠনের প্রস্তাব দেন। এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, মন্ত্রীদের দিয়ে কমিটি করে কী হবে? তারা তো মন্ত্রিসভা বৈঠকের আইন-নীতিমালাগুলো পড়েন না। এ সময় বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশন আইনের খসড়াটি পর্যালোচনার জন্য প্রধানমন্ত্রী মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে একটি কমিটিকে দায়িত্ব দেন।’

প্রধানমন্ত্রীর এ অসন্তোষের বিষয়ে ওই প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘অনেক সময় আইন ও নীতিমালা অনুমোদনের সময় মন্ত্রীরা আলোচনায় অংশ নেন না। দু-একজন অংশ নিলেও তা হয় দুর্বল। সবই তার দৃষ্টিতে থাকে।’ আইনের ক্ষেত্রে মন্ত্রিসভা বৈঠকে প্রথমে খসড়ার নীতিগত অনুমোদন দেওয়া হয়। এরপর আইন মন্ত্রণালয়ের পরীক্ষা-নিরীক্ষার (ভেটিং) পর চূড়ান্ত অনুমোদন দেয় মন্ত্রিসভা। তবে নীতিমালা ও চুক্তির ক্ষেত্রে একবারই অনুমোদন দেওয়া হয়।

Print
1033 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About admin

Close