জাবি ছাত্রদলের ৮ নেতার পদত্যাগের ঘোষণা

এক্সপ্রেস ডেস্ক: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) শাখা ছাত্রদলের নতুন কমিটিতে পদ পাওয়া আট নেতা পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন। মঙ্গলবার দুপুরে একযোগে তারা পদত্যাগের ঘোষণা দেন। জাবি শাখা ছাত্রদলের নবগঠিত কমিটিতে নিরলস, পরিশ্রমী, ত্যাগী, নির্যাতিত ও জাতীয়তাবাদী আদর্শে উদ্বুদ্ধ ছাত্রদলের প্রকৃত নেতাকর্মীদের প্রাধান্য না দিয়ে অযোগ্য নেতাকর্মীদের পদায়নের অভিযোগ এনে তারা পদত্যাগের ঘোষণা দেন। একই সঙ্গে তারা কেন্দ্রীয় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বরাবর লিখিত পদত্যাগপত্র জমা দেবেন বলেও জানান।

পদত্যাগের ঘোষণা দেওয়া ছাত্রদলনেতারা হলেন— শাখা ছাত্রদলের নতুন কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি-১ মুরাদ হোসেন হীরা, সহ-সভাপতি-৫ নবিনুর রহমান নবীন, সহ-সভাপতি-৬ রাব্বি হাসান, সহ-সভাপতি-৭ ফয়সাল হোসেন, সহ-সভাপতি-৮ ইব্রাহিম খলিল বিপ্লব, সহ-সভাপতি-৯ শাহরিয়ার হক মজুমদার শিমুল, যুগ্ম সম্পাদক-২ ইসরাফিল চৌধুরী সোহেল, যুগ্ম সম্পাদক-৩ ওয়াসিম আহমেদ অনীক।

কেন্দ্রীয় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বরাবর লিখিত পদত্যাগপত্রে ছাত্রদল নেতারা উল্লেখ করেন, ‘বর্তমান কমিটির শীর্ষ পদে এমন ব্যক্তিদের পদায়ন করা হয়েছে যারা ক্যাম্পাসের সর্বমহলে ছাত্রলীগের বি-টিম হিসেবে পরিচিত। যাদের অতীতে শাখা ছাত্রদলের কমিটিতে এক দিনের জন্যও দেখা যায়নি। রাজনীতির মাঠে যারা জাবি শাখা ছাত্রদলের অধিকাংশ নেতাকর্মীদের তুলনায় অনুজ। এই কমিটিতে গত পাঁচ বছর ধরে জাবি শাখা ছাত্রদলের জন্য নিরলস পরিশ্রম করে যাওয়া ত্যাগী, নির্যাতিত, জাতীয়তাবাদী আদর্শে উদ্বুদ্ধ ছাত্রদলের প্রকৃত নেতাকর্মীদের মতামতকে সম্পূর্ণভাবে উপেক্ষা করা হয়েছে। আদর্শবহির্ভূত ও নীতিনৈতিকতাহীন এই কর্মকাণ্ডের দায়ভার নিতে সম্পূর্ণ অপারগতা প্রকাশ করে সজ্ঞানে ও স্বপ্রণোদিত হয়ে জাবি শাখা ছাত্রদলের পদ থেকে পদত্যাগ করছি।’

পদত্যাগের বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহিম সৈকত বলেন, ‘এখন পর্যন্ত লিখিত কোনো পদত্যাগপত্র হাতে পাইনি।’ প্রসঙ্গত, শনিবার রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের ৩৭তম ব্যাচের সোহেল রানাকে সভাপতি ও একই বিভাগের ৩৮তম ব্যাচের আবদুর রহিম সৈকতকে সাধারণ সম্পাদক করে শাখা ছাত্রদলের ১৯ সদস্যবিশিষ্ট নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়। এরপর থেকে নতুন কমিটি নিয়ে নানা আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়।

Print
1664 মোট পাঠক সংখ্যা 3 আজকের পাঠক সংখ্যা

About admin

Close