ঝিনাইদহের মাহমুদা বেগম ”রত্নাগর্ভা মা ”

ঝিনাইদহের মাহমুদা বেগম ”রত্নাগর্ভা মা ”হিসাবে ২০১৪ নির্বাচিত
আতিকুর রহমান টুটুল, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ
আজ বিশ্ব মা দিবস । বিশ্ব মা দিবস উপলক্ষে আজাদ প্রডাক্ট প্রাইভেট লিমিটেড সারা বাংলাদেশ থেকে ২৫ জন মাকে রত্নাগর্ভা সম্মানে ভূষিত করেছে । মোছা ঃ মাহমুদা বেগম এবার ঝিনাইদহ থেকে রত্নাগর্ভা মা সম্মামনায় ভূষিত হয়েছেন । মাহমুদা বেগম ঝিনাইদহের স্বনামধন্য ডাঃ নাছির উদ্দিন আহম্মেদ এর সহ-ধর্মীনী । ডাঃ নাছির উদ্দীন আহম্মেদ মানবেতর সেবাই নিজেকে সব সময় উৎসর্গ করেছেন । গৃহে তেমন সময় দিতে না পরলেও গৃহিণী মহমুদা বেগম ৬ সন্তানের জননী হওয়া সত্বেও সংসারের কাজ কর্মের পাশাপাশি সন্তানদের করেছেন প্রতিষ্ঠিত । “রত্নাগর্ভা মা একান্ত আলাপচারিতায় বলেন , বড় ছেলে জাফর আহম্মেদ জনতা ব্যংকের জি ,এম । মেজো ছেলে ফিরোজ ম্যনেজমেন্ট কনসালটেন্ট , আর ছোট ছেলে ডা ঃ জাহিদ আহম্মেদ (উপপরিচালক পরিবার পরিকল্পনা ) ঝিনাইদহ। মেয়ে তিনজন বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পাস করে প্রতিষ্ঠিত । আমি আজ “ রত্নাগর্ভা মা” নির্বচিত হয়ে যতটুকুনা আনন্দ পেয়েছি তার চেয়ে বেশী আনন্দিত যে, আমি আজ আমার সব সন্তানদের সুশিক্ষায় শিক্ষিত করতে পেরেছি । এর চেয়ে বড় পাওয়া একজন মায়ের জন্য আর কি হতে পারে । অনুভূতির কথা জানতে চাইলে বলেন, সরকারের গুরূত্বপূর্ণ মন্ত্রির হাত থেকে এ ধরনের পুরুস্কার নেওয়া সত্যিই আনন্দের । আজ মনে হচ্ছে আমার পরিশ্রম সার্থক । আমি একজন স্বার্থক মা ।

ঝিনাইদহে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে  দু’দল গ্রামবাসীর সংঘর্ষ আহত-৭
ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ
আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার উদয়পুর গ্রামে দু’দল গ্রামবাসীর সংঘর্ষে ৭ জন আহত হয়েছে। আহতরা হলো একই গ্রামের জামাল উদ্দিন (৫৫), কামাল উদ্দিন (৪০), আকিমূল বিশ্বাস (৩৮), লতা আনোয়ার শাহ্ (৪২),রাজ্জাক (৭০) সহ ৭ জন। আহতদেরকে ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

Jhenidah clash1 Photo 9-05-15 (4)

এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, গত বুধবার উদয়পুর গ্রামের আজিজুল হক ও গোলাম রসুলের মধ্যে পাওনা টাকা চাওয়াকে কেন্দ্র করে বাক-বিতন্ডা হয়। বাক-বিতন্ডার এক পর্যায়ে শনিবার সকালে ওই গ্রামে নজরুল ইসলামের সমর্থকরা দেশীয় অস্ত্রে শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে আনারুলের লোকজনের উপর হামলা চালায়। এতে ৭ জন আহত হয়। ঝিনাইদহ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্ত (ওসি) বিপ¬ব কুমার নাথ জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

চলমান পুলিশি অভিযানে ঝিনাইদহে ২২ জন গ্রেফতার
ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ
চলমান পুলিশি অভিযানে ঝিনাইদহে বিভিন্ন উপজেলায় অভিযান চালিয়ে দুই জামায়াতকর্মীসহ বিভিন্ন মামলায় ২২ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার আলতাফ হোসেন জানান,বিভিন্ন মামলার আসামীদের ধরতে পুলিশ চলমান অভিযান পরিচালনা করে এতে হরিণাকুন্ডু থেকে তিন জন, সদর উপজেলা থেকে আট জন, শৈলকুপা থেকে পাঁচ জন, কালীগঞ্জ থেকে দুই, কোটচাঁদপুর থেকে দুই জন ও মহেশপুর থেকে দুই জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আটককৃতদেরকে কোর্টের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরন করা হবে।

ঝিনাইদহের শৈলকুপার রড়মিস্ত্রি শওকত এখন   ক্যান্সার চিকিৎসক!
ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ
ঝিনাইদহের শৈকুপাতে রডমিস্ত্রি থেকে ক্যানসারের মতো জটিল রোগের চিকিৎসক ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার কাঁচেরকোল ইউনিয়নের জাংগালিয়া গ্রামের শওকত আলী। ক্যানসার সাড়াও গ্যাংগ্রিজ, হাপানি, প্রতিবন্ধি, টিউমারসহ যাবতীয় রোগের চিকিৎসা করেন কবিরাজ শওকত আলী। শওকত আলী জাংগালিয়া গ্রামের দরবেশ আলী জোয়ার্দ্দারের ছেলে।

Jhenidah-kobiraj Pic

শওকত আলী হযরত শাহ জালাল মাজার সংলগ্ন জনৈক এক ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানে রড সোজা করার কাজ করতেন বলে এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে। সিলেট থেকে গত ১ বছর হলো তিনি বাড়ি চলে আসেন। বাড়িতে এসে তিনি তার বাবাকে মনগড়া গল্প সাজিয়ে বলে তার কাছে আশরাফ চৌধুরী নামে এক পীর অবস্থান করে সব সময়। শওকত আলীর সুন্নতি লেবাস না থাকলেও টুপি মাথায় রাখেন প্রতারনা করার জন্য। শওকত আলীর পীর নাকি এও বলেছে তুই যদি মানব সেবা না করিস তাহলে তোকে মেরে ফেলা হবে বলে জানান তার পিতা। সেই পীর সাহেবের কথামতোই তিনি ক্যানসারসহ সব রোগের চিকিৎসা প্রদান করে আসছেন। আজ সকালে সরেজমিনে জাংগালিয়া গ্রামে গিয়ে দেখা যায় ভন্ড কবিরাজ শওকত আলী চিকিৎসার নামে প্রতারণার নানান চিত্র। শৈলকুপা এলাকার অশিক্ষিত নারী পুরুষ ভিড় করছে তেল ও পানি পড়া নেয়ার জন্য। সেইসঙ্গে চলছে ঝাড়ফুক। তার এ চিকিৎসায় অনেক রোগী ভালো হয়েছে বলে দাবি করা হলেও তিনি কোন রোগীর ঠিকানা বা পরিচয় কেউ দিতে পারেনি এই প্রতিবেদককে। স্থানীয় আবুল হোসেন নামে এক যুবক সাথে কথা বলে জানা যায় তিনি এই প্রতিবেদককে বলেন, জাংগালিয়া গ্রামের দরবেশ আলীর জোয়ার্দ্দারের ৬ ছেলে ও ১ মেয়ের মধ্যে ভন্ড কবিরাজ শওকত আলী সবার বড়। সম্ভাবত সে ৫ম শ্রেণী পর্যন্ত লেখাপাড়া শেষ না করতেই সংসারের অভাবের তাড়নায় রাজমিস্ত্রির কাজ করতে পরিচিত একজনের সাথে চলে যান সিলেট হযরত শাহ জালাল মাজার সংলগ্ন জনৈক এক ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানে। লোক মুখে শুনেছি সেখানে তিনি রড সোজা করার কাজ করতেন। সিলেট থেকে গত ১ বছর তিনি বাড়ি ফিরে এ প্রতারনা শুরু করেছেন। ভন্ডকবিরাজের কাছে চিকিৎসা নিতে আসা ভবিতপুর গ্রামের জহির আলীর স্ত্রী ডলি খাতুন জানান, সে হাপানিজনিত রোগে ভুগছেন। তবে তার অবস্থা ভালো হয়নি আবার খারাপও হয়নি। রোগ ভাল না হওয়ায় তিনি আবারও পানিপড়া ও তেল নিতে এসেছেন বিনিময়ে ৪০ টাকা দিতে হয়েছে কবিরাজকে। শৈলকুপার সাধুহাটি গ্রামের আলেয়া এসেছেন এই প্রথম। তাকে জিঞ্জাসা করা হলে তিনি জানান প্রথম এসেছি চিকিৎসা নিতে তাই কিছু বলতে রাজি নাই। তবে কবিরাজের সর্ম্পকে তিনি জানান, শুনেছি অনেকেই ভালো হয়েছে। বিশ্বাস করে কবিরাজের কাছে এসেছি। এলাকাবাসী জানায়, বিভিন্ন এলাকা থেকে অশিক্ষিত নারী-পুরুষ যাদের মনে নানা কুসংস্কার ভরা থাকে তারা এসে সেখানে চিকিৎসা নেয়। কিন্তু যখন তাদের রোগ আর ভালো হয় না, প্রতারণা বুঝতে পারে তখন আর তারা চিকিৎসা নিতে আসে না। তখন কবিরাজে আশেপাশে থাকা দালাল চক্র প্রচার করতে থাকে বিভিন্ন গ্রাম থেকে আসা লোকদের রোগ ভালো হয়ে যাওয়ায় তার আর আসে না। এভাবে দালাল চক্রের মাধ্যমে ফাঁদ পেতে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে ভন্ড কবিরাজ শওকত। ঝিনাইদহের সিভিল সার্জন ড. আব্দুস সালাম বলেন,চিকিৎসা শাস্ত্রে ঝাড়ফুক, পানি ও তেল পড়া দিয়ে কোনো রোগ ভলো হয় না । তিনি আরও বলেন অবিলম্বে এ প্রতারণা বন্ধ হওয়া উচিত। উল্লেখ্য ঝিনাইদহ জেলায় মাঝে মধ্যে শওকত আলীর মতো প্রতারক ভন্ডকবিরাজের জন্ম হয়। এ বিষয়ে ঝিনাইদহ জেলার পুলিশ সুপার আলতাফ হোসেন জানান, বিষয়টি তিনি সরেজমিন তদন্ত করেছেন এবং আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার জন্য শৈলকুপার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবার জন্য বলেছেন। তবে জনগণের সঙ্গে প্রতারনা করলে তার বিরুদ্ধে অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও তিনি আশ্বাস দেন।

ঝিনাইদহে র‌্যাবের অভিযানে ৯২ বোতল ফেন্সিডিল আটক
ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ
ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডু উপজেলায় ৯২ বোতল ফেনসিডিলসহ ২ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৬। আটককৃতরা হলেন- হরিনাকুন্ডু পৌর এলাকার বৈঠাপাড়া গ্রামের মসলেম উদ্দিনের ছেলে তসের আলী মণ্ডল (৩৫) ও নারয়নকান্দি গ্রামের কাশেম আলীর ছেলে সিদ্দিকুর রহমান (২৩)। শনিবার দুপুর ২টার দিকে তাদের আটক করা হয়। ঝিনাইদহ র‌্যাব-৬ এর সহকারী পরিচালক নূরুজ্জামান সংবাদিকদের জানায়,গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বৈঠাপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৯২ বোতল ফেনসিডিলসহ তাদেরকে আটক করা হয়। আটককৃতদের জিঞ্জাসাবাদ শেষে হরিণাকুণ্ডু থানায় হস্তান্তরের করা বলে তিনি জানন।

Print
901 মোট পাঠক সংখ্যা 1 আজকের পাঠক সংখ্যা

About Jessore Express

Close